Home / মিডিয়া নিউজ / ‘লোভ-লালসা-পরকীয়া মধুর দিনগুলোকে নষ্ট করে দিয়েছে’

‘লোভ-লালসা-পরকীয়া মধুর দিনগুলোকে নষ্ট করে দিয়েছে’

নির্মাতা রনি। মেন্টাল ছবি দিয়ে আলোচনায় আসেন। এরপর জাজের একটি ছবি নির্মাণ করেন। রনির

পথ চলাটা ক্রমশ মসৃণ হতে থাকে। আসন্ন কোরবানি ঈদে রংবাজ ছবি মুক্তি পেতে যাচ্ছে। যার শুরুটা ছিল রনির হাত ধরেই।

পরিচালক রনি যখন এগিয়ে যাচ্ছিলেন তখন নানা প্রতিবন্ধকতাই সামনে এসে দাঁড়িয়ে যাচ্ছিল। চলচ্চিত্র

সমিতি রনিকে নিষিদ্ধ করে। যার কারণে ’রংবাজ’ থেকে সরে দাঁড়াতে হয় তাকে। তবে রনির এই পিছলে যাওয়াকে লোভ-লালসা আর পরকীয়ার ফল হিসেবেই দেখছেন তার স্ত্রী তমা। তমার সাথে এখন রনির মানসিক দূরত্ব অনেক। তমাও স্পষ্ট করলেন। লিখেছেন সোশাল মিডিয়া ফেসবুকে। কী লিখেছেন?

তমা একটি ছবি পোস্ট করেছে লিখেছেন, এই একটা ছবির মধ্যেই অনেক কথা লুকিয়ে আছে। যেখানে দুজন সুপারস্টার আছেন যারা বাস্তবে স্বামী-স্ত্রী, আমি-রনি, মিশা ভাই, টপি ভাই আর বাকিজন একজন সাংবাদিক (নামটা মনে করতে পারছি না)। এগুলো তো খুব বেশিদিন আগের দিনের কথা না। এইতো সে দিনের কথা! যখন আমাদের সবার সঙ্গে সবার একটা মধুর সম্পর্ক ছিল অথচ ভাবা যায় লোভ-লালসা, অহংকার, পরকীয়া….সেই মধুর দিনগুলোকে এক নিমিষে নষ্ট করে দিয়েছে।

তমা বলেন, এখন ব্যাপারটা এমন হয়ে দাঁড়িয়েছে যে একজনের মুখ দেখাও অন্যজনের জন্য হারাম। পৃথিবীটা বড় অদ্ভুত জায়গা… এখানে একজন মানুষের মন আসলে কি দিয়ে বানানো তার উত্তর কারুরই জানা নেই হয়তো!
তমা বলেন, আসলেই ’দিনগুলি মোর সোনার খাঁচায় রইল না’… রবি ঠাকুরের কথা বলে কথা! অথচ আমার বিশ্বাসই হতো না এককালে গানের লাইনগুলি! “তুমি কেন তাহলে আমাকে বারবার বলেছ, বিশ্বাস কর টম তোমাকে ছাড়া আমি একমুহূর্তও থাকতে পারব না, তুমি যদি কখনো আমায় ছেড়ে যাও দেখো আমি মরে যাব ঠিক!”
এগুলো কি তোমার এই আট বছরের অভিনয় ছিল, খুব জানতে ইচ্ছে করে….

Check Also

আমি নায়িকা ছিলাম, নায়িকা হয়েই মরবো: নূতন

ঢাকাই সিনেমার সোনালি যুগের জনপ্রিয় অভিনেত্রী নূতন। দীর্ঘ ক্যারিয়ারে মূল থেকে পার্শ্ব চরিত্র; তিন শতাধিক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *